ঢাকা , শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
প্রতিনিধি নিয়োগ
দৈনিক সময়ের প্রত্যাশা পত্রিকার জন্য সারা দেশে জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে প্রতিনিধি নিয়োগ করা হচ্ছে। আপনি আপনার এলাকায় সাংবাদিকতা পেশায় আগ্রহী হলে যোগাযোগ করুন।

কুষ্টিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান পদপ্রার্থীকে মারধরের ঘটনায় মামলা, গ্রেপ্তার ৩

কুষ্টিয়া সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আবু আহাদ আল মামুনকে মারধরের ঘটনায় মামলা হয়েছে। আজ  ৭ মে, মঙ্গলবার সকালে আবু আহাদ বাদী হয়ে ১১ জনের নামে থানায় মামলা করেছেন। এ ঘটনায় তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে কুষ্টিয়া সদর থানা  পুলিশ।

গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন,কুষ্টিয়া সদর পৌরসভার ১০ নম্বর ওয়ার্ডের চরমিলপাড়া এলাকার রেজাউল করিম (৩৫), শহীদ (৩৩) ও গিরিশ শাহিম (৩২। তাঁরা স্থানীয় কাউন্সিলর কিশোর কুমার ঘোষ জগতের সমর্থক।

মামলায় সদর পৌরসভার ১০ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর কিশোর কুমার ঘোষ জগৎকে প্রধান আসামি করা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে তিনি পলাতক। এসব তথ্য নিশ্চিত করেন কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ সোহেল রানা।

গতকাল ৬ মে,সোমবার রাত ৮টার দিকে ওয়ার্ড কাউন্সিলর কিশোর কুমার ঘোষের নেতৃত্বে ও তাঁর সমর্থকেরা নির্বাচনী অফিসে ঢুকে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আবু আহাদকে মারধর ও অপহরণের চেষ্টা করেন। আহত অবস্থায় তাঁকে রাতেই কুষ্টিয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

৮ মে প্রথম ধাপে অনুষ্ঠিত কুষ্টিয়া সদর উপজেলা নির্বাচনে আবু আহাদ মোটরসাইকেল প্রতীকে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করছেন। তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বর্তমান চেয়ারম্যান আতাউর রহমান আতা। তিনি আনারস প্রতীক নিয়ে লড়ছেন। আতা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও কুষ্টিয়া সদর আসনের এমপি মাহবুব উল আলম হানিফের চাচাতো ভাই।

প্রার্থী আবু আহাদ আল মামুন বলেন, থানায় মামলা দায়ের করেছি। আমি শারীরিকভাবে প্রচণ্ড অসুস্থ। হামলাকারীরা আমার মাথা, বুক ও পিঠে আঘাত করেছে।

Tag :
এই অথরের আরো সংবাদ দেখুন

জনপ্রিয় সংবাদ
error: Content is protected !!

কুষ্টিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান পদপ্রার্থীকে মারধরের ঘটনায় মামলা, গ্রেপ্তার ৩

আপডেট টাইম : ০২:৩৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৭ মে ২০২৪
কুষ্টিয়া সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আবু আহাদ আল মামুনকে মারধরের ঘটনায় মামলা হয়েছে। আজ  ৭ মে, মঙ্গলবার সকালে আবু আহাদ বাদী হয়ে ১১ জনের নামে থানায় মামলা করেছেন। এ ঘটনায় তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে কুষ্টিয়া সদর থানা  পুলিশ।

গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন,কুষ্টিয়া সদর পৌরসভার ১০ নম্বর ওয়ার্ডের চরমিলপাড়া এলাকার রেজাউল করিম (৩৫), শহীদ (৩৩) ও গিরিশ শাহিম (৩২। তাঁরা স্থানীয় কাউন্সিলর কিশোর কুমার ঘোষ জগতের সমর্থক।

মামলায় সদর পৌরসভার ১০ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর কিশোর কুমার ঘোষ জগৎকে প্রধান আসামি করা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে তিনি পলাতক। এসব তথ্য নিশ্চিত করেন কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ সোহেল রানা।

গতকাল ৬ মে,সোমবার রাত ৮টার দিকে ওয়ার্ড কাউন্সিলর কিশোর কুমার ঘোষের নেতৃত্বে ও তাঁর সমর্থকেরা নির্বাচনী অফিসে ঢুকে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আবু আহাদকে মারধর ও অপহরণের চেষ্টা করেন। আহত অবস্থায় তাঁকে রাতেই কুষ্টিয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

৮ মে প্রথম ধাপে অনুষ্ঠিত কুষ্টিয়া সদর উপজেলা নির্বাচনে আবু আহাদ মোটরসাইকেল প্রতীকে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করছেন। তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বর্তমান চেয়ারম্যান আতাউর রহমান আতা। তিনি আনারস প্রতীক নিয়ে লড়ছেন। আতা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও কুষ্টিয়া সদর আসনের এমপি মাহবুব উল আলম হানিফের চাচাতো ভাই।

প্রার্থী আবু আহাদ আল মামুন বলেন, থানায় মামলা দায়ের করেছি। আমি শারীরিকভাবে প্রচণ্ড অসুস্থ। হামলাকারীরা আমার মাথা, বুক ও পিঠে আঘাত করেছে।