ঢাকা , শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
Logo ঢাকায় সংবাদ সম্মেলনে কান্নাজড়িত কণ্ঠে আঞ্জুমান আরা Logo দৌলতপুরে ব্র্যাক শাখা অফিসের উদ্বোধন Logo তানোরে ইউপি চেয়ারম্যানের মৃত্যুতে শোকসভা ও মিলাদ Logo তানোরে গরু মোটাতাজা করণে নিষিদ্ধ ওষুধের রমরমা বাণিজ্যে Logo উচ্চ আদালতে রিট পিটিশন দায়েরঃ ভোট গ্রহণের ৫ দিন আগে যশোর সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচন স্থগিত Logo যশোরে ৭০ লাখ টাকা ফেরত না দিয়ে প্রতারণার অভিযোগে আদালতে মামলা Logo তানোর পোস্ট অফিস থেকে টাকা গায়েবঃ ফেরত পেতে গ্রাহকের আত্মহত্যার হুমকি Logo নড়াইল সদর উপজেলা নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ ও বিতর্কিত করার চেষ্টার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন Logo বোয়ালমারীতে চেয়ারম্যান প্রার্থী লিটু শরীফের গণমাধ্যম কর্মীদের সাথে মতবিনিময় Logo প্রেম প্রস্তাবে ব্যর্থ হয়ে এডিস নিক্ষেপকারী যুবকের যাবজ্জীবন কারাদন্ড
প্রতিনিধি নিয়োগ
দৈনিক সময়ের প্রত্যাশা পত্রিকার জন্য সারা দেশে জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে প্রতিনিধি নিয়োগ করা হচ্ছে। আপনি আপনার এলাকায় সাংবাদিকতা পেশায় আগ্রহী হলে যোগাযোগ করুন।

দৌলতপুর নির্বাচনে ডিউটিতে অর্ধ কোটি টাকা নিয়োগ বাণিজ্য

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে আসন্ন ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে অর্থের বিনিময়ে অপ্রশিক্ষিত আনসার সদস্য নিয়োগ দিচ্ছেন বলে অভিযোগ উঠেছে আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা প্রশিক্ষক হাচিবুর রহমান তারেক এর বিরুদ্ধে।

বিষয়টি জানাজানি হলে প্রশিক্ষিত আনসার সদস্যরা অভিযোগ করে বলেন, বেশিরভাগ অপ্রশিক্ষিত আনসার সদস্যের হাতে ভারি অস্ত্রের ভার তুলে দেওয়ার যে প্রক্রিয়া তিনি করেছেন তাতে ঘটতে পারে দুর্ঘটনা। এ ধরনের অপ্রশিক্ষিত আনসার সদস্যদের হাতে অস্ত্র তুলে দিয়ে পাঠানো হবে নির্বাচনী ডিউটিতে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক আনসার সদস্য অভিযোগ করে বলেন, গত জানুয়ারি মাসে অনুষ্ঠিত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দৌলতপুর উপজেলার ১২৯টি ভোট কেন্দ্র্রে নিরাপত্তার জন্য নিয়োগ দেওয়া আনসার সদস্যদের কাছ থেকে নেওয়া হয়েছিল ১ থেকে ১ হাজার ৫০০ টাকা, কারো কারো কাছে ২ হাজার টাকা পর্যন্ত নিয়েছিলেন। ঠিক একই পন্থায় আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ১৪১টি ভোট কেন্দ্রের নিরাপত্তার জন্য ২ হাজার ১২৬ জন আনসার নিয়োগ দিয়ে তাদের কাছ থেকে ১ থেকে ২ হাজার ৫০০ টাকা করে নেওয়া হচ্ছে।

আনসার সদস্যরা আরো বলেন, হাচিবুর রহমান তারেক এই উপজেলায় পাঁচ বছর যাবত থাকায় স্থানীয়ভাবে আধিপত্য বিস্তার করেছেন। সংশ্লিষ্ট দপ্তরে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন কায়দায় লাখ লাখ টাকা লোপাট করেছেন তিনি। তারা আরো বলেন, গত বছর ইউনিয়ন আনসার কমান্ডাররা হাচিবুর রহমান তারেক এর অনিয়মের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েও কোন কাজ হয়নি।

বেশিরভাগ অপ্রশিক্ষিত আনসার সদস্যের হাতে ভারি অস্ত্র দিয়ে উপজেলার ১৪১টি ভোট কেন্দ্রের নিরাপত্তার জন্য ২ হাজার ১২৬ জন আনসার নিয়োগ জনপ্রতি ১ থেকে ২ হাজার ৫০০ টাকা আদায়ের অভিযোগ অস্বীকার করেন উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা ও প্রশিক্ষক বরং যারা অভিযোগ করেছিল পরবর্তীতে তাদের বিভিন্ন ভাবে পদে পদে হয়রানিতে ফেলার চেষ্টা করেছে ওই কর্মকর্তা। চাকরিতে বদলি নীতি থাকলেও তিনি এই উপজেলায় বহাল রয়েছেন বলে অভিযোগ করেন আনসার সদস্যরা।

টাকার লেনদেনের বিষয়ে জানাতে চাইলে অভিযোগ অস্বীকার করে দৌলতপুর উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন ও প্রশিক্ষক হাচিবুর রহমান তারেক বলেন, এবার দৌলতপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ২ হাজার ১২৬ জন আনসার সদস্য নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। এরা সবাই প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত।

এ বিষয়ে জানতে জেলা আনসার ভিডিপির অতিরিক্ত কমান্ডেন্ট প্রদীপ কুমার দত্ত ও উপজেলা নির্বাচন কমিশনার অঞ্জন কুমার মণ্ডল এর মোবাইল ফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও তাদের কোন সাড়া মেলেনি।

Tag :
এই অথরের আরো সংবাদ দেখুন

ঢাকায় সংবাদ সম্মেলনে কান্নাজড়িত কণ্ঠে আঞ্জুমান আরা

error: Content is protected !!

দৌলতপুর নির্বাচনে ডিউটিতে অর্ধ কোটি টাকা নিয়োগ বাণিজ্য

আপডেট টাইম : ০৭:২৮ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৬ মে ২০২৪

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে আসন্ন ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে অর্থের বিনিময়ে অপ্রশিক্ষিত আনসার সদস্য নিয়োগ দিচ্ছেন বলে অভিযোগ উঠেছে আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা প্রশিক্ষক হাচিবুর রহমান তারেক এর বিরুদ্ধে।

বিষয়টি জানাজানি হলে প্রশিক্ষিত আনসার সদস্যরা অভিযোগ করে বলেন, বেশিরভাগ অপ্রশিক্ষিত আনসার সদস্যের হাতে ভারি অস্ত্রের ভার তুলে দেওয়ার যে প্রক্রিয়া তিনি করেছেন তাতে ঘটতে পারে দুর্ঘটনা। এ ধরনের অপ্রশিক্ষিত আনসার সদস্যদের হাতে অস্ত্র তুলে দিয়ে পাঠানো হবে নির্বাচনী ডিউটিতে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক আনসার সদস্য অভিযোগ করে বলেন, গত জানুয়ারি মাসে অনুষ্ঠিত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দৌলতপুর উপজেলার ১২৯টি ভোট কেন্দ্র্রে নিরাপত্তার জন্য নিয়োগ দেওয়া আনসার সদস্যদের কাছ থেকে নেওয়া হয়েছিল ১ থেকে ১ হাজার ৫০০ টাকা, কারো কারো কাছে ২ হাজার টাকা পর্যন্ত নিয়েছিলেন। ঠিক একই পন্থায় আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ১৪১টি ভোট কেন্দ্রের নিরাপত্তার জন্য ২ হাজার ১২৬ জন আনসার নিয়োগ দিয়ে তাদের কাছ থেকে ১ থেকে ২ হাজার ৫০০ টাকা করে নেওয়া হচ্ছে।

আনসার সদস্যরা আরো বলেন, হাচিবুর রহমান তারেক এই উপজেলায় পাঁচ বছর যাবত থাকায় স্থানীয়ভাবে আধিপত্য বিস্তার করেছেন। সংশ্লিষ্ট দপ্তরে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন কায়দায় লাখ লাখ টাকা লোপাট করেছেন তিনি। তারা আরো বলেন, গত বছর ইউনিয়ন আনসার কমান্ডাররা হাচিবুর রহমান তারেক এর অনিয়মের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েও কোন কাজ হয়নি।

বেশিরভাগ অপ্রশিক্ষিত আনসার সদস্যের হাতে ভারি অস্ত্র দিয়ে উপজেলার ১৪১টি ভোট কেন্দ্রের নিরাপত্তার জন্য ২ হাজার ১২৬ জন আনসার নিয়োগ জনপ্রতি ১ থেকে ২ হাজার ৫০০ টাকা আদায়ের অভিযোগ অস্বীকার করেন উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা ও প্রশিক্ষক বরং যারা অভিযোগ করেছিল পরবর্তীতে তাদের বিভিন্ন ভাবে পদে পদে হয়রানিতে ফেলার চেষ্টা করেছে ওই কর্মকর্তা। চাকরিতে বদলি নীতি থাকলেও তিনি এই উপজেলায় বহাল রয়েছেন বলে অভিযোগ করেন আনসার সদস্যরা।

টাকার লেনদেনের বিষয়ে জানাতে চাইলে অভিযোগ অস্বীকার করে দৌলতপুর উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন ও প্রশিক্ষক হাচিবুর রহমান তারেক বলেন, এবার দৌলতপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ২ হাজার ১২৬ জন আনসার সদস্য নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। এরা সবাই প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত।

এ বিষয়ে জানতে জেলা আনসার ভিডিপির অতিরিক্ত কমান্ডেন্ট প্রদীপ কুমার দত্ত ও উপজেলা নির্বাচন কমিশনার অঞ্জন কুমার মণ্ডল এর মোবাইল ফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও তাদের কোন সাড়া মেলেনি।