ঢাকা , বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
Logo পূর্বভাটদী মাদ্রাসার ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচন বহাল রাখার দাবীতে সংবাদ সম্মেলন Logo বিভিন্ন অভিযোগ এনে ভোট বর্জন করলেন চেয়ারম্যান প্রার্থী Logo সালথা ও নগরকান্দা উপজেলা নির্বাচনী কেন্দ্র পরিদর্শন করলেন জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার Logo ভোটার ২৪৮০, এক ঘণ্টায় ভোট পড়েছে ১২টি, একটি বুথে শূন্য ভোট Logo নিরবছিন্ন বিদ্যুৎ নিশ্চিতে বিদ্যুৎ বিভাগের অনলাইন কর্মশালা Logo প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগঃ শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রের বড় ব্যবধানে জয়লাভ Logo আলিপুরে আরসিসি ড্রেন নির্মাণ প্রকল্পের উদ্বোধন করলেন পৌর মেয়র Logo কেন্দ্রে শুধু ভোটার নেই, অন্য সব ঠিক আছে Logo নাটোরে চেয়ারম্যান প্রার্থীর প্রধান সমন্বয়কারীকে হাতুড়িপেটার অভিযোগ Logo ভূরুঙ্গামারীতে স্মার্টফোন কিনে না দেওয়ায় মাদ্রাসা ছাত্রীর আত্মহত্যা
প্রতিনিধি নিয়োগ
দৈনিক সময়ের প্রত্যাশা পত্রিকার জন্য সারা দেশে জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে প্রতিনিধি নিয়োগ করা হচ্ছে। আপনি আপনার এলাকায় সাংবাদিকতা পেশায় আগ্রহী হলে যোগাযোগ করুন।

গোমস্তাপুরে ৪০ দিনের কর্মসূচির উদ্বোধন হতদরিদ্রদের স্বস্তি

২০২৩-২০২৪ অর্থবছরে অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি (ইজিপিপি) আওতায় ২য় পর্যায়ের চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুর উপজেলার ৮টি ইউনিয়নের গ্রামীণ রাস্তাঘাট সংস্কার কাজের শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। ৪০ দিনের কর্মসূচিতে সাধারণত রাস্তা, ধসে যাওয়া রাস্তার পাড় সংস্কার করা হয়। এতে দীর্ঘদিন থেকে চলাচল অনুপযোগী হয়ে পড়া রাস্তাগুলো আবারও চলাচলের উপযোগী হয়ে উঠবে। সেইসঙ্গে ইউনিয়নের হতদরিদ্র কর্মহীন মানুষগুলো শ্রমিক হিসেবে এ কর্মসূচিতে কাজ করার সুযোগ পাচ্ছেন। এতে তারাও আর্থিকভাবে কিছুটা হলেও লাভবান হচ্ছেন।

 

সোমবার (১৫ এপ্রিল) সকাল ৯ টায় উপজেলা প্রশাসন ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগের আয়োজন রহনপুর ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডে মচকৈল গ্রামে এ প্রকল্পের কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে। উপজেলার ৮ টি ইউনিয়নের মোট ৩৮ প্রকল্প এক যোগে কাজ শুরু হয়েছে।

 

রহনপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ মনিরুজ্জামানের সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ হাবিবুর রহমান, রহনপুর ৭নং ইউপি সদস্য মোঃ আইনাল হকসহ এলাকার জনপ্রতিনিধি ও বিভিন্ন শ্রেনী ও পেশার মানুষ এবং হতদরিদ্র কর্মহীন শ্রমিক প্রমুখ।

 

রহনপুর ইউনিয়ন ৭ নম্বর ওয়ার্ডের মচকৈল বাজার কুতুবের দোকান থেকে মচকৈল খাড়ি পর্যন্ত একটি প্রকল্প। রাস্তাটি সংস্কার হওয়ায় প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন স্থানীয়রা। স্থানীয়রা জানায় শ্রমিকরা সুন্দরভাবে কাজ করছেন। বর্ষার সময় কাদা থেকেও অনেকটা রেহাই পাওয়া যাবে। তবে আমরা এলাকাবাসীর পক্ষে দাবি জানাই রাস্তাটি যেন ইটের হেয়ারিং করা হয়।

 

এদিকে মাটি কাটার কাজ করা পুনরা গ্রামের মোঃ লতিফুর রহমান নামের এক শ্রমিক বলেন, ৪০০ টাকা করে মজুরি পাবেন তিনি। ৪০ দিন কাজ করলে ১৬ হাজার টাকা পাবেন। আগামীতেও যেন আরো কাজ তাদের দেওয়া হয় সেই দাবি জানান তিনি।

 

রহনপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ মনিরুজ্জামান জানান, ইউনিয়নে বর্তমানে ৪০ দিনের কর্মসূচি কাজের উদ্বোধন হলো । চলমান এ কর্মসূচির মাধ্যমে ইউনিয়নের বেশকিছু রাস্তা সংস্কার করা হবে। সেইসঙ্গে হতদরিদ্রদের কাজের সুযোগ হয়েছে।

 

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ হাবিবুর রহমান বলেন, অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচির আওতায় ৮টি ইউনিয়নে গ্রামীণ কাঁচা রাস্তা সংস্কার করা হচ্ছে। গোমস্তাপুর ইউনিয়নে ২৭০ জন, বাঙ্গাবাড়ি ইউনিয়নে ১৭৭ জন, রাধানগর ইউনিয়নে ৪৪৯ জন, পারবর্তীপুর ইউনিয়নে ৪১৬ জন, রহনপুর ইউনিয়নে ২০১ জন, বোয়ালিয়া ইউনিয়নে ২১৮ জন, চৌডাল ইউনিয়নে ২১৪ জন ও আলিনগর ইউনিয়নে ১২০ জনসহ উপজেলায় মোট ২০৬৫ জন শ্রমিক ৪০ দিন করে কাজের সুযোগ পাচ্ছেন। বছরে দুবার করে এ কর্মসূচির আওতায় কাজ করা হচ্ছে। আমরা চেষ্টা করছি গ্রামীণ অবকাঠানোর উন্নয়নের সঙ্গে সঙ্গে হতদরিদ্রদের জন্য কাজের সুযোগ সৃষ্টি করতে।

 

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নিশাত আনজুম অনন্যা বলেন, উপজেলায় ৪০ দিনের কাজ সরকারি বিধি মোতাবেক হচ্ছে। শ্রমিকরা কাজ পেয়ে অত্যন্ত খুশি।

Tag :
এই অথরের আরো সংবাদ দেখুন

পূর্বভাটদী মাদ্রাসার ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচন বহাল রাখার দাবীতে সংবাদ সম্মেলন

error: Content is protected !!

গোমস্তাপুরে ৪০ দিনের কর্মসূচির উদ্বোধন হতদরিদ্রদের স্বস্তি

আপডেট টাইম : ০১:৪১ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪

২০২৩-২০২৪ অর্থবছরে অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি (ইজিপিপি) আওতায় ২য় পর্যায়ের চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুর উপজেলার ৮টি ইউনিয়নের গ্রামীণ রাস্তাঘাট সংস্কার কাজের শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। ৪০ দিনের কর্মসূচিতে সাধারণত রাস্তা, ধসে যাওয়া রাস্তার পাড় সংস্কার করা হয়। এতে দীর্ঘদিন থেকে চলাচল অনুপযোগী হয়ে পড়া রাস্তাগুলো আবারও চলাচলের উপযোগী হয়ে উঠবে। সেইসঙ্গে ইউনিয়নের হতদরিদ্র কর্মহীন মানুষগুলো শ্রমিক হিসেবে এ কর্মসূচিতে কাজ করার সুযোগ পাচ্ছেন। এতে তারাও আর্থিকভাবে কিছুটা হলেও লাভবান হচ্ছেন।

 

সোমবার (১৫ এপ্রিল) সকাল ৯ টায় উপজেলা প্রশাসন ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগের আয়োজন রহনপুর ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডে মচকৈল গ্রামে এ প্রকল্পের কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে। উপজেলার ৮ টি ইউনিয়নের মোট ৩৮ প্রকল্প এক যোগে কাজ শুরু হয়েছে।

 

রহনপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ মনিরুজ্জামানের সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ হাবিবুর রহমান, রহনপুর ৭নং ইউপি সদস্য মোঃ আইনাল হকসহ এলাকার জনপ্রতিনিধি ও বিভিন্ন শ্রেনী ও পেশার মানুষ এবং হতদরিদ্র কর্মহীন শ্রমিক প্রমুখ।

 

রহনপুর ইউনিয়ন ৭ নম্বর ওয়ার্ডের মচকৈল বাজার কুতুবের দোকান থেকে মচকৈল খাড়ি পর্যন্ত একটি প্রকল্প। রাস্তাটি সংস্কার হওয়ায় প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন স্থানীয়রা। স্থানীয়রা জানায় শ্রমিকরা সুন্দরভাবে কাজ করছেন। বর্ষার সময় কাদা থেকেও অনেকটা রেহাই পাওয়া যাবে। তবে আমরা এলাকাবাসীর পক্ষে দাবি জানাই রাস্তাটি যেন ইটের হেয়ারিং করা হয়।

 

এদিকে মাটি কাটার কাজ করা পুনরা গ্রামের মোঃ লতিফুর রহমান নামের এক শ্রমিক বলেন, ৪০০ টাকা করে মজুরি পাবেন তিনি। ৪০ দিন কাজ করলে ১৬ হাজার টাকা পাবেন। আগামীতেও যেন আরো কাজ তাদের দেওয়া হয় সেই দাবি জানান তিনি।

 

রহনপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ মনিরুজ্জামান জানান, ইউনিয়নে বর্তমানে ৪০ দিনের কর্মসূচি কাজের উদ্বোধন হলো । চলমান এ কর্মসূচির মাধ্যমে ইউনিয়নের বেশকিছু রাস্তা সংস্কার করা হবে। সেইসঙ্গে হতদরিদ্রদের কাজের সুযোগ হয়েছে।

 

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ হাবিবুর রহমান বলেন, অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচির আওতায় ৮টি ইউনিয়নে গ্রামীণ কাঁচা রাস্তা সংস্কার করা হচ্ছে। গোমস্তাপুর ইউনিয়নে ২৭০ জন, বাঙ্গাবাড়ি ইউনিয়নে ১৭৭ জন, রাধানগর ইউনিয়নে ৪৪৯ জন, পারবর্তীপুর ইউনিয়নে ৪১৬ জন, রহনপুর ইউনিয়নে ২০১ জন, বোয়ালিয়া ইউনিয়নে ২১৮ জন, চৌডাল ইউনিয়নে ২১৪ জন ও আলিনগর ইউনিয়নে ১২০ জনসহ উপজেলায় মোট ২০৬৫ জন শ্রমিক ৪০ দিন করে কাজের সুযোগ পাচ্ছেন। বছরে দুবার করে এ কর্মসূচির আওতায় কাজ করা হচ্ছে। আমরা চেষ্টা করছি গ্রামীণ অবকাঠানোর উন্নয়নের সঙ্গে সঙ্গে হতদরিদ্রদের জন্য কাজের সুযোগ সৃষ্টি করতে।

 

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নিশাত আনজুম অনন্যা বলেন, উপজেলায় ৪০ দিনের কাজ সরকারি বিধি মোতাবেক হচ্ছে। শ্রমিকরা কাজ পেয়ে অত্যন্ত খুশি।